fbpx

Advanced WordPress Theme Customization with Freelancing

কেন ওয়ার্ডপ্রেস শিখবেন?

* ওয়ার্ডপ্রেস হচ্ছে বর্তমান সময়ে সর্বধিক জনপ্রিয় ব্লগ পাবলিশিং অ্যাপ্লিকেশন এবং শক্তিশালী কন্টেন্ট ম্যানেজমেন্ট সিস্টেম (CMS)।
*বর্তমানে পৃথিবীর প্রায় 60% ওয়েব ডেভেলপার ওয়ার্ডপ্রেস প্লাটফর্ম ব্যবহার করে
* ওয়ার্ডপ্রেস দিয়ে খুব সহজেই যে কোন ধরনের সাইট তৈরি করতে পারবেন।
* বর্তমান মার্কেটপ্লেস গুলতে ওয়ার্ডপ্রেস এর চাহিদা সবচেয়ে বেশি।
*ওয়ার্ডপ্রেস দ্বারা কোন প্রকার পিএইচপি মাইএসকিউএল এবং এইচটিএমএল এর সাধারণ জ্ঞান থাকলে ওয়ার্ডপ্রেস দ্বারা প্রফেশনাল মানের সংবাদপত্র, কর্পোরেট ওয়েবসাইট, পার্সোনাল ওয়েবসাইট, কোম্পানী ওয়েবসাইট, ই-কমার্স সাইট, ক্লাসিফাইড সাইট অথবা সোশ্যাল মিডিয়া ওয়েবসাইট তৈরি করা যায়।
* এর মাধ্যমে ই-কমার্স সাইট, বিজনেস সাইট সহ সকল প্রকার ওয়েব সাইটকে ডায়নামিক করা যাবে।
*বিভিন্ন মার্কেট প্লেস এ ওয়ার্ডপ্রেস থিম ডেভলপমেন্ট এর অনেক চাহিদা থাকায়, সেখানে প্রচুর কাজ করতে পারবেন।
*বিভিন্ন ওয়েব ডেভেলপ ফার্ম এ ভাল বেতনের চাকরি করতে পারবেন।

এই কোর্সে যা যা শিখবেন

  • Undertake WordPress Installation
  • Make basic theme and plugin customization
  • Use Slider and Page Builder
  • Make different types of websites including Business website, Membership website, E-commerce website, Portfolio website, Booking website, etc.
  • Undertake WordPress Migration.

 

ওয়ার্ডপ্রেসের সবচেয়ে বড় সুবিধা

ওয়ার্ডপ্রেসের সবচেয়ে বড় সুবিধা হল এজন্য আপনাকে পিএইচপি (PHP) বা এইচটিএমএল (HTML) কিছুই জানতে হবে না। ডেভেলপারকে শুধু সাইটের লুক আর কন্টেন্ট ক্রিয়েট নিয়ে চিন্তা করতে হয়, তাও আবার কোন প্রকারের কোডিং ছাড়াই। ওয়ার্ডপ্রেসে আছে সহজে ব্যবহারযোগ্য ইন্টারফেস আর ড্যাশবোর্ডের সুবিধা যার মাধ্যমে একজন ব্যবহারকারি ওয়েব ডেভেলপমেনট সম্পর্কে তেমন কোন জ্ঞান না থাকা সত্ত্বেও খুব সহজেই একটি ওয়েবসাইট বানাতে ও ম্যানেজ এবং নিজে নিজেই ব্লগ পোস্ট করতে পারে। এজন্য ব্যবহারকারীর কোন প্রকার টেকনিকাল জ্ঞান না থাকলেও হবে। আর সবার শেষে বিল্ট ইন এসইও (SEO) সুবিধা তো আছেই।

ওয়ার্ডপ্রেসের থিম কাস্টমাইজেশনের মাধ্যমে আপনি আপনার ওয়েবসাইটের লুক যখন খুশি তখন বদলাতে পারবেন। ওয়ার্ডপ্রেসের উল্লেখযোগ্য আরও কিছু সুবিধা হল-লিংক ম্যানেজমেন্ট, ব্লগ পোস্ট ইনডেক্সিং এবং একই ব্লগ অথবা ওয়েবসাইটে একাধিক লেখক কে কন্টেন্ট ডেভেলপ করার সুযোগ দেয়া। অন্য ব্লগ থেকে ওয়ার্ডপ্রেসে কন্টেন্ট ইম্পোর্ট (Import) করা যায়। এটি অন্যান্য ব্লগিং সার্ভিস যেমন ট্র্যাকব্যাক এবং পিংব্যাকের সাথেও খুব ভালভাবে কাজ করে।

ওয়ার্ডপ্রেসে সিকিউরিটি বিষয়ক অনেক সুবিধাও আছে। যেমন-স্প্যাম (Spam) কন্ট্রোল, ভিজিটর কমেন্ট, ইউজার রেজিস্ট্রেশন এবং কিছু সিলেক্টেড পোস্টে পাসওয়ার্ড প্রোটেকশন। এই কন্টেন্ট ম্যানেজমেন্ট সিস্টেমে আরও অনেক কম্প্যাটিবল প্লাগিংস (Plugins) আছে যা আপনার ব্লগিং এর প্রতি ভালবাসাকে বহুগুণ বাড়িয়ে দিবে।

ওয়ার্ডপ্রেস শুরুটা কিন্তু ছিল মানুষের ব্যক্তিগত পর্যায়ে যোগাযোগের টুল হিসেবে। তবে এখন এটা ব্যক্তিগত লেনদেনের পাশাপাশি বিজনেস ওয়ার্ল্ডেও এর দাপট কোন অংশে কম নয়। ওয়ার্ডপ্রেস দিয়ে খুব সহজেই ব্লগিং সাইট তৈরি ও মেইনটেইন করা যায়। তাই ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠানগুলো তাদের টার্গেটেড কাস্টমারদের সাথে যোগাযোগ রক্ষা করতে পারে এবং মত বিনিময় করতে পারে।

তাই এখন আপনার সিদ্ধান্ত নেয়ার সময় এসেছে। ওয়ার্ডপ্রেসের এতো সুবিধা ছেড়ে এখনো অন্য কনটেন্ট ম্যানেজমেন্ট সিস্টেমনিয়ে পড়ে থাকবেন? না ওয়ার্ডপ্রেস শিখে নিজের কর্ম জীবন কে অন্য উচ্চতায় নিয়ে যাবেন।

 

Session 1

1
Ice Breaking
2
Drive Intro
3
MarketPLace Intro

Session 2

1
Local Host Setup
2
WordPress Installation
3
Overview on WordPress Dashboard
4
Assignment

Session 3

1
Free Theme Installation and Customization

Session 4

1
Premium Theme Installation
2
Visual Composer
3
Revolution Slider

Session 5

1
Landing Page Creation Creation
2
Elementor Pro
3
Assignment

Session 6

1
Ecommerce Theme Installation
2
Setup and Full Overview on Wocommerce

Session 7

1
Contact Form
2
Mailchimp
3
Membership PLugins

Session 8

1
Assessment on Full Website Creation and Customization

Session 9

1
Be Theme with Muffin Builder
2
Visual Composer

Session 10

1
Divi Theme Full Customization with Divi Builder
2
WP Migration and Question Answer Session

Session 11

1
Exam on Full WordPress Website Creation Using Premium Theme and Plugin

Session 12

1
Marketplace Introduction
2
Account Creation and Completion

Session 13

1
Gig Creation
উত্তরঃ আপনি নিজে “Enroll Now” এ ক্লিক করে আমাদের আমাদের নির্দেশবলী দেখে নিজেই কোর্সে জয়েন করতে পারবেন। আপনি চাইলে আমাদের লাইভ সাপোর্ট ফোন কল এর মাধ্যমে কোর্সে জয়েন করতে পারবেন এবং আমাদের এজেন্টের মাধ্যমে ও কোর্সে জয়েন করতে পারবেন।কোর্সে জয়েন করার ভিডিও দেখুন
উত্তরঃ অনলাইনে ক্লাস হবে । স্ক্রীন শেয়ারিং এর মাধ্যমে ক্লাস হবে।আপনি বাসায় বসে কম্পিউটার, ল্যাপটপ অথবা মোবাইলে মাধ্যমে আমার ক্লাসে জয়েন হতে পারবেন। প্রতিটি ক্লাস রেকর্ড করা হবে কোন কারনে ক্লাস মিস করলে ক্লাস এর রেকর্ডকৃত ভিডিও ডাউনলোড এর লিঙ্ক দেওয়া হবে।কিভাবে ক্লাসে জয়েন করবেনভিডিও দেখুন
উত্তরঃ ইন্টারনেট সংযোগ এবং স্মার্টফোন অথবা কম্পিউটার /লাপটপ
উত্তরঃ যে কেউ এই কোর্স করতে পারবেন। তবে আপনার কম্পিউটার, ইন্টারনেট সম্পর্কে প্রাথমিক ধারণা থাকতে হবে।
উত্তরঃ জি, আপনি ইন্সট্রাক্টরের কাছ থেকে যেকোনো সহযোগিতা নিতে পারবেন। আপনাদের সর্বাত্নক সহযোগিতায় আমাদের সাপোর্ট টীম রয়েছে। এছাড়া ক্যারিয়ার বিষয়ক যেকোনো হেল্প পেতে আমাদের ফেইসবুক গ্রুপে জয়েন করুন।

Tentative Class Start - 15th October, 2019

Be the first to add a review.

Please, login to leave a review
Add to Wishlist
Enrolled: 42 students
Duration: 3 Month
Lectures: 28
Level: Beginner

Live Class Time

MondayClosed
Tuesday8 pm - 10 pm
WednesdayClosed
Thursday8 pm - 10 pm
FridayClosed
Saturday8 pm - 10 pm
SundayClosed